প্রথমবারের মতো ফলোঅন করালো বাংলাদেশ

নিজেরা ফলোঅনে পড়েছে কতবার সে হিসেব কষতে বসতে হবে সময় নিয়ে। সে তুলনায় প্রতিপক্ষকে ফলোঅন করানোর সুযোগ খুব একটা আসেনি বাংলাদেশ দলের সামনে। এমনকি প্রথম ইনিংসে লিডও নেয়া গিয়েছে হাতে গোনা কয়েকটি ইনিংসে। গত মাসে জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে ঢাকা টেস্টে ২১৮ রানে এগিয়ে থেকেও ফলোঅন করায়নি বাংলাদেশ, পাওয়া হয়নি প্রথমবারের মতো প্রতিপক্ষকে ফলোঅন করানোর স্বাদ।

অবশেষে সেই ঢাকাতেই ওয়েস্ট ইন্ডিজের মতো কুলিন টেস্ট খেলুড়ে দেশের বিপক্ষে ফলোঅন করানোর স্বাদ পেলো বাংলাদেশ। স্বাগতিকদের করা ৫০৮ রানের পাহাড়ের জবাবে ক্যারিবীয়রা অলআউট হয়ে গেছে মাত্র ১১১ রানে। ৩৯৭ রানের বিশাল ব্যবধানে এগিয়ে থাকায় ফলোঅন করানোর সিদ্ধান্ত নিতে দুই বার ভাবতে হয়নি আর বাংলাদেশ দলকে।

চট্টগ্রাম টেস্টের মতো ঢাকাতেও দেখা গেছে আড়াইদিনেই টেস্ট শেষ হয়ে যাওয়ার সম্ভাবনা। বাংলাদেশের সামনে হাতছানি দিচ্ছে প্রথমবারের মতো ইনিংস ব্যবধানে জয়ের রেকর্ড গড়ার সুযোগহগ। এখনো পর্যন্ত বাংলাদেশের ইতিহাসের সবচেয়ে বড় জয়ের রেকর্ডটি ২২৬ রানের, জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে ২০০৫ সালে। আগে ব্যাট করে এর চেয়ে বড় জয় নেই স্বাগতিকদের।

দ্বিতীয় দিন শেষ বিকেলে মাত্র ২৯ রানেই ৫ উইকেট তুলে নিয়েই ফলোঅনের সুযোগ তৈরি করে রেখেছিল বাংলাদেশ। দিনের শেষভাগে শিমরন হেটমায়ার ও শেন ডওরিচ জুটি গড়ে ধাক্কা সামাল দিলেও, তৃতীয় দিন সকালে আর বেশিক্ষণ টিকতে পারেননি তারা। মেহেদি হাসান মিরাজের ঘূর্ণিতে পড়েই তৃতীয় দিনে মাত্র ৫১ মিনিটে শেষ পাঁচ উইকেট হারিয়ে ফেলে সফরকারীরা।

দিনের শুরুতেই বিপদজনক শিমরন হেটমায়ারকে সাজঘরে পাঠিয়েছেন মেহেদী হাসান মিরাজ, ফিরতি ক্যাচে পরিণত করে। হেটমায়ার আউট হতে পারতেন আগের বলেই। বাংলাদেশ ডিসিশন রিভিউ নিতে ভুল করায় লেগ বিফোরের হাত থেকে বেঁচে যান ক্যারিবীয়ান এই যুবা। চলতি সিরিজে এখনো পর্যন্ত তিনবারই হেটমায়ারের উইকেট নিয়েছেন মিরাজ।

হেটমায়ারকে ফেরানোর পর প্রতিপক্ষের লেজটা মুড়ে দিতে সময় নেননি বাংলাদেশের তরুণ অফ স্পিনার মেহেদি হাসান মিরাজ। দেবেন্দ্র বিশুকে ফিরিয়েছেন সিলি পয়েন্টের হাতে ক্যাচ বানিয়ে, কেমার রোচ ছক্কা হাঁকাতে গিয়ে ধরা পড়েছেন লং অন ফিল্ডারের হাতে। আর ক্যারিয়ার সেরা ফিগারে পৌঁছতে মিরাজ ক্যারিবিয়ান উইকেটরক্ষক শেন ডওরিচকে ফেলেছেন লেগ বিফোরের ফাঁদে।

আর শুরুর মতো শেষের উইকেটটাও নেন দলের অধিনায়ক সাকিব আল হাসান। মাত্র ১১১ রানেই গুটিয়ে দেন ক্যারিবীয়দের ইনিংস। শুধু ফলোঅন করানোতেই সীমাবদ্ধ নয় বাংলাদেশের এ ইনিংসের কৃতিত্ব। এর আগে আর কোনো দলকে এতো অল্প রানে অলআউটও করতে পারেনি টাইগাররা। ২০১৪ সালের ঢাকা টেস্টে জিম্বাবুয়েকে অলআউট করেছিল ১১৪ রানে।

Comments

comments

শেয়ার করুন

PinIt